1. hasanchy52@gmail.com : admin :
  2. amarnews16@gmail.com : Akram Hossain : Akram Hossain
শনিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ০১:৫৬ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ

সুপার টুয়েলভে বাংলাদেশের সম্ভাবনা

  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ২২ অক্টোবর, ২০২১
  • ৯৪ বার দেখা হয়েছে

ধাক্কা খেয়ে শুরু, তারপর ঘুরে দাঁড়ানো জয় এবং যেমনটা প্রত্যাশা করা হয়েছিল, দেখা মিলল তেমন বাংলাদেশের। পাপুয়া নিউ গিনিকে উড়িয়ে দিয়ে সুপার টুয়েলভে তারা। কিন্তু চূড়ান্ত পর্বে চোখ রেখে যে পরিকল্পনা নিয়ে বাংলাদেশ গিয়েছিল, সেটা ভেস্তে গেছে। আইসিসির আগের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী গ্রুপ ২ এ ভারত, পাকিস্তান, আফগানিস্তান ও নিউ জিল্যান্ডের সঙ্গী হতো তারা। কিন্তু সিদ্ধান্ত পাল্টে যাওয়ায় প্রথম রাউন্ডে গ্রুপ রানার্সআপ হয়ে অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ইংল্যান্ডের সঙ্গে ২ নম্বর গ্রুপে খেলতে যাচ্ছে।

দুইবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও একবারের বিশ্ব সেরা ইংল্যান্ড রয়েছে বাংলাদেশের গ্রুপে। এছাড়া রেকর্ড ওয়ানডে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়াকেও মোকাবিলা করতে হবে। আরেক প্রতিদ্বন্দ্বী প্রথম রাউন্ডের ‘এ’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন, সম্ভবত সাবেক চ্যাম্পিয়ন শ্রীলঙ্কা। কঠিন গ্রুপেই পড়েছে বাংলাদেশ। তারা শারজা ও আবু ধাবিতে দুটি করে ম্যাচ খেলবে। একটি ম্যাচ দুবাইয়ে।

আগামী ২৪ অক্টোবর প্রথম রাউন্ডের গ্রুপ চ্যাম্পিয়নের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। শারজায় এশিয়ার দুই প্রতিদ্বন্দ্বীর সঙ্গে জমজমাট লড়াই হবে প্রত্যাশা করাই যায়। তিন দিন পর ২৭ অক্টোবর আবু ধাবিতে ইংল্যান্ডকে মোকাবিলা করবে তারা। কলকাতা নাইট রাইডার্স সতীর্থ এউইন মর্গ্যানের দলের সঙ্গে সাকিব আল হাসানের হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হতে পারে।

২৯ অক্টোবর শারজায় ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তৃতীয় ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। ক্যারিবিয়ানদের কঠিন পরীক্ষাই নিবে তারা। চোকার্স দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে আবু ধাবিতে ম্যাচ ২ নভেম্বর। দুই দিন পর ৪ নভেম্বর তাদের প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া, যাদের বিপক্ষে সম্প্রতি দাপুটে সিরিজ জিতেছে বাংলাদেশ।

প্রতিপক্ষ শক্তিশালী হলেও বাংলাদেশের জন্য ইতিবাচক ব্যাপার হলো আমিরাতের কন্ডিশন অন্যদের চেয়ে তাদের অনুকূলে। উপমহাদেশীয় কন্ডিশনের সঙ্গে মিল আছে, যেখানে অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ডের মতো দলগুলো নাস্তানাবুদ হয়েছে কয়েকবার। সেক্ষেত্রে বাংলাদেশের স্পিনার সাকিব আল হাসান, মেহেদী হাসান, নাসুম আহমেদরা প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের জন্য চ্যালেঞ্জিং হবে। আর মোহাম্মদ নাঈম, লিটন দাস থেকে শুরু করে মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদউল্লাহর ব্যাটিং নিয়ে সামর্থ্যের পরিচয় দিতে হবে। সেরা চার দলের একটি হয়ে বাংলাদেশ ইতিহাস গড়তে পারবে কি না সেটা নির্ভর করছে তাদের পারফরম্যান্সের ওপর।

আরেকটি কথা, সুপার টুয়েলভে বাংলাদেশকে কোনো ম্যাচই ফ্ল্যাড লাইটের নিচে খেলতে হবে না। সবগুলো ম্যাচই হবে বাংলাদেশ সময় বিকাল চারটায়।

শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরও খবর
© All rights reserved © 2014 Amar News
Site Customized By Hasan Chowdhury